Best Reseller Hosting Service in BD
আমি আতিকুর রহমান। পেশায় একজন B.Sc Engineer. আমি খুব বেশি কিছু জানি না তবে ব্লগ লেখা আমার শখ। তাই যখন সুযোগ পাই তখন লিখতে বসি। যদি আমার একটি পোস্ট ও আপনাদের একটু হলেও হেল্প করে তাহলে আমার চেষ্টা সার্থক হবে। সবাই ভাল থাকবেন।
মোট পোস্ট সংখ্যা: 374  »  মোট কমেন্টস: 5  
Facebook
Google Plus
Twitter
Linkedin

লাল মাংসের ৪ টি স্বাস্থ্য উপকারিতা

e-HostBD Hosting Service

কোরবানির ঈদ মানেই তো গরু আর খাসী খাওয়ার হিড়িক! প্রতিদিন বেলায় বেলায় গরুর মাংসের ভুনা অথবা কাবাব লেগেই থাকে। সঙ্গে খাসীর কাচ্চি, লেগ রোস্ট এসব তো আছেই। লাল মাংস শরীরের জন্য ক্ষতিকর এটা আমরা সবাই জানি। কিন্তু লাল মাংসের যে কিছু স্বাস্থ্য উপকারিতাও আছে তা কি আমরা জানি? আসুন জেনে নেয়া যাক লাল মাংসের স্বাস্থ্য উপকারিতা।
প্রোটিনের উৎস

মাত্র ৩ আউন্স গরু কিংবা খাসীর মাংস খেলে একজন প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষের দৈনিক প্রোটিনের চাহিদার অর্ধেক পূরণ হয়ে যায়। লাল মাংসের থেকে যে প্রোটিন পাওয়া যায় তাতে মাংসপেশি গঠনের সব এমিনো এসিড আছে। শারীরিক ভাবে কর্মক্ষম থাকার জন্য সুগঠিত মাংসপেশি অত্যন্ত জরুরি। আর শারীরিক ভাবে কর্মক্ষম থাকলে শরীরে বিভিন্ন এনজাইম ও হরমোন উৎপাদিত হবে। ফলে শরীর সুস্থ্ ও সবল থাকবে।

আয়রনের উৎস

e-HostBD Hosting Service

চার বছরের বেশি বয়সের শিশুদের এবং প্রাপ্ত বয়স্কদের প্রতিদিন ১৮ মিলিগ্রাম আয়রনের চাহিদা থাকে। লাল মাংসে প্রচুর পরিমাণে আয়রণ আছে। সপ্তাহে দুইবার গরুর মাংস খেলে রক্তের মাধ্যমে পুরো শরীরে অক্সিজেন সরবরাহের জন্য প্রয়োজনীয় আয়রনের চাহিদা পূরণ করে। আয়রনের অভাব থেকে দুর্বলতা, কিছু শিখতে সমস্যা হওয়া ও আরো নানান রকম সমস্যা হয়। মাত্র ৩ আউন্স লাল মাংসে ২.৪ মিলিগ্রাম আয়রন আছে।
জিঙ্কের উপস্থিতি

খাবার তালিকায় লাল মাংস থাকতে তা আপনার দেহের জিঙ্কের অভাব পূরণ করে। জিঙ্ক মানুষের মাংসপেশিকে সবল করে, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় এবং মস্তিষ্কের স্বাস্থ্য ভালো রাখতে সহায়তা করে। বেশিরভাগ মানুষের শরীরের জন্যই প্রতিদিন ১৫ মিলিগ্রাম জিঙ্ক প্রয়োজন। প্রতি ৩ আউন্স লাল মাংসে ৫.৫ মিলিগ্রাম জিঙ্ক থাকে।
বি ভিটামিন

লাল মাংস বিভিন্ন রকম ভিটামিন বি এর একটি প্রাকৃতিক উৎস। সুস্থ শরীরের জন্য প্রাকৃতিক উৎসের ভিটামিন বি গ্রহণ করা জরুরী। লাল মাংসে আছে ভিটামিন বি-১২ যা নার্ভ সচল রাখে ও ভিটামিন বি-৬ যা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। এছাড়াও লাল মাংসে নিয়াসিন আছে যা হজমে সহায়তা করে এবং রিবোফ্লাবিন যা চোখ ও ত্বক ভালো রাখে।

সপ্তাহে একবার কিংবা দুই বার লাল মাংস খেতে পারেন। তবে লাল মাংস খেতে অবশ্যই সাবধানতা প্রয়োজন। যারা স্থূলতা, ডায়াবেটিস, রক্তচাপ বা হৃদরোগে ভুগছেন তাদের অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী লাল মাংস খাওয়া উচিত। মাংস রান্না না করে পুড়িয়ে কাবাব করার চেষ্টা করুন। কারণ এতে ক্ষতিকর চর্বি অনেকটাই ঝরে যায়। সাথে রাখুন প্রচুর সবজি। তাহলে লাল মাংস খেলে ক্ষতির বদলে উপকার পাবেন।

ভাল লাগলে অবশ্যই শেয়ার করতে ভুলবেন না ...

e-HostBD Hosting Service
eHostBD Hosting

মন্তব্য করুন